এবার জনস্বার্থে গরু বিলি করবে রাজ্য

এবার জনস্বার্থে গরু বিলি করবে রাজ্য
SHARES
Share on FacebookShareTweet on TwitterTweet

নিজস্ব সংবাদদাতা: বিগত মাস খানেক যাবৎ খবরের শিরোনামে থেকেছে ‘গরু’। সমগ্র ভারতে গরুকে কেন্দ্র করে ঘটেছে একাধিক হিংসার ঘটনাও। একদিকে কেন্দ্রে ক্ষমতাসীন বিজেপি সরকার গরুকে দেবতা হিসাবে প্রতিষ্ঠিত করতে উদ্যোগী। এবং এবং ‘গো-হত্যা’ মহাপাপ এই মত প্রতিষ্ঠায় সচেষ্ট।

এবার জনস্বার্থে গরু বিলি করবে রাজ্য
ছবি প্রতীকী

তবে এই বঙ্গের ক্ষমতাসীন তৃণমূল সরকার ‘গো-দেবতা’ প্রসঙ্গে উদাসীন হলেও এবার গরুকে জীবিকার্জনের মধ্যম হিসাবে প্রতিষ্ঠায় তৎপর। সূত্রের খবর মারফত গ্রামীণ পরিবারগুলিকে স্বনির্ভর করতে গরু বিলি করবে রাজ্য। ইতিমধ্যেই যার কাজ শুরু হয়ে গিয়েছে জোর কদমে। বীরভূমের গ্রামগুলিতে প্রায় এক হাজার গরু বিলি করা হয়েছে এখনো অবধি। আগামী কয়েক মাসের মধ্যেই বাকি সব জেলাতেও শুরু হবে গরু বিলির কাজ। গরু বিলির দায়িত্বে থাকা প্রাণিসম্পদ বিকাশ দফতর সূত্রে খবর আপাতত পরিবার পিছু বরাদ্ধ একটি করে গরু। যার কাজ শেষ হবে আসন্ন পঞ্চায়েত ভোটের আগেই।

পঞ্চায়েত ভোটে নিজেদের অবস্থান মজবুত করতে এবং মানুষের ভোট টানতেই এই উদ্যোগ বলে মত বিরোধীদের একাংশের। এর আগেও সবুজ সাথী, কন্যাশ্রীর মতো প্রকল্পের মাধ্যমে সাধারণ মানুষের মন জয় করে গ্রামীণ ভোটব্যাংক মজবুত করেছে বর্তমান সরকার। কিন্তু বর্তমানে রাজ্যে বিজেপি-র মতো অলিখিত প্রধান বিরোধী শক্তির বৃদ্ধিতে ফাটল ধরতে পারে সেই ভোট ব্যাংকে।এই আশঙ্কা তেই এরকম সিদ্ধান্ত বলে দাবি নিচুতলার বিরোধী কর্মীদের।

অন্যদিকে কেন্দ্র গরু নিয়ে বক্তৃতা চওড়া করলেও তাকে মানুষের জীবিকা হিসাবে গড়ে তোলার ব্যাপারে আগ্রহ দেখায় নি কখনোই। বর্তমান প্রধানমন্ত্রী ভারতকে ডিজিটাইজেশন করতে যতটা উদ্যোগী হয়েছেন ঠিক ততটাই উদাসীন থেকেছেন গ্রামকেন্দ্রিক অর্থনীতিকে চাঙ্গা করতে। নোট বাতিল, জিএসটি নিয়ে কেন্দ্র একাধিক মঞ্চে বক্তব্য রাখলেও গ্রামীণ উন্নয়ন নিয়ে বক্তৃতা চোখে পড়েনি তেমন। তাই পশ্চিমবঙ্গে মমতা বন্দোপাধ্যায় সরকারের এই প্রয়াস দেশীয় রাজনীতি তেও প্রভাব ফেলবে বলেই মত রাজনৈতিক বিশেষজ্ঞদের।

ADVERTISEMENT
ADVERTISEMENT

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *