খাস খবর আয়োজিত শারদ সম্মান-২০১৫

SHARES
Share on FacebookShareTweet on TwitterTweet

খাস খবর আয়োজিত শারদ সম্মান-২০১৫

 

খাস খবর শারদ সম্মান আমার পাড়া সেরার সেরা আয়োজন-এর মধ্যে দিয়ে ২০১৫ দুর্গোৎসবকে এক আলদা মাত্রা এনে দিয়েছিল। পুজো শুরুর এক মাস আগে থেকে আমাদের টিম এর অক্লান্ত পরিশ্রম শুরু, একটাই লক্ষ অর্থের বা সুপারিশের ভিত্তিতে আমরা পুরষ্কার বিক্রি করবনা। সে জন্যই কোনো ফোরাম এর হাত না ধরে আমাদের সাংবাদিকরা নিজেরাই প্রতিটি প্যান্ডেল এ ঘুরে ঘুরে জানার চেষ্টা করেছি পুজোগুলির বিষয়ে এবং নাম নতিভুক্ত করেছে পুজো কমিটি গুলোর। এ বছর আমাদের সাথে প্রাথমিক পর্যায়ে ২৭০ জন প্রতিযোগী ছিল। যাদের মধ্যে ১২৫ জনকে চুড়ান্ত পর্যায়ে বাছা হয়। তাদের মধ্যে সব প্যান্ডেল ঘুরে দেখার পর প্রথম ৩৫ জন কে বাছাই করা হয়। যাদের মধ্যে শেষপর্যন্ত ১৯টি বিজয়ী ক্লাবকে আমরা পুরষ্কার তুলে দিতে পেরেছি।

খাস খবর আয়োজিত শারদ সম্মান-২০১৫
খাস খবর আয়োজিত শারদ সম্মান-২০১৫

 

পুরষ্কার তালিকায় ছিল-

সেরা মন্ডপ (প্রথম, দ্বিতীয় এবং তৃতীয়), সেরা প্রতিমা (প্রথম, দ্বিতিয়, এবং তৃতীয়), সেরা আলোকসজ্জা((প্রথম, দ্বিতিয়, এবং তৃতীয়), সেরা ভাবনা (প্রথম, দ্বিতিয়, এবং তৃতীয়)। এছাড়াও কবি স্বাতী পালিত স্মৃতি পুরষ্কার-এ নামাঙ্কিত ৭টি বিশেষ পুরষ্কারও প্রদান করা হয়।

 

খাস খবর আয়োজিত শারদ সম্মান-২০১৫
খাস খবর আয়োজিত শারদ সম্মান-২০১৫

আমারপাড়া সেরার সেরা-এ দুটি বিভাগ ছিল। ১. পাড়ার পুজো( বাজেট ১০ লাখ এর মধ্যে)। ২. মহা পুজো( উচ্চ বাজেট)। কম বাজেটের পুজোর পাশে বেশী বাজেটের তূল্য মূল্য বিচার করেছেন, আমাদের বিচারকরা এবং ফিন্যান্সিয়াল অয়ানালিস্ট টিম।

 

আমাদের অংশগ্রহনকারী পুজোর মধ্যে ছিল টালা বারোয়ারি, নলিন সরকার স্ট্রীট, সিকদার বাগান, দর্জীপাড়া, দমদম পার্ক তরূন দল, ভারত চক্র, নাকতলা উদয়ন সঙ্ঘ, চেতলা অগ্রনী, বালিগঞ্জ কালচারাল, কাঁকুড়্গাছি যুববৃন্দ, তেলেঙ্গাবাগান প্রমূখ।

আমাদের বিচারপর্ব শুরু হয় চতুর্থীর দিন থেকে। চতুর্থী, পঞ্চমী, ষষ্ঠী, সপ্তমী সারাদিন সারারাত আমাদের বিচারক মন্ডলী বিভিন্ন প্যান্ডেল ঘুরে তাদের উদ্যগতার সাথে কথা বলেন এবং কারু-কার্য দেখেন।

 

খাস খবর আয়োজিত শারদ সম্মান-২০১৫
খাস খবর আয়োজিত শারদ সম্মান-২০১৫

এরপর অষ্টমী ও নবমী হয় আমাদের পুরষ্কার বিতরনী পর্ব। প্রতিটি বিজয়ী ক্লাবকে আমাদের টিম গিয়ে পুরষ্কার পৌছে দেয় এবং মেতে ওঠে তাঁদের সাথে বিজয়উল্লাসে। যেন পুরোটাই একটি পরিবার আনন্দ পরিবার।

বিচারক মন্ডলীতে ছিলেন-

যাদু সূর্য্য এস লাল, শিবপ্রিয় দাশগুপ্ত(প্রবীন দাংবাদিক), অভিষেক সেনগুপ্ত (তারা নিউজ), পাঞ্চালী কর (চিত্র পরিচালক/ ড্যান্স কোরিওগ্রাফার/ চিত্র সমালোচক), অমিত রায় (থিম শিল্পী), সঙ্গে ছিলেন দেব (সম্পাদক, সচিত্র খাস খবর), স্বর্ণালী মজুমদার (মুখ্য সাংবাদিক, সচিত্র খাস খবর), দেব্দীপ সিনহা (মিডিয়া সম্পাদক, খাস খবর), সুভাষ কর (পুস্তক সমালোচক/ লেখক)। সমগ্র ব্যাপারটি ফ্রেম বন্দি করেন সৃজনা চক্রবর্তী এবং সন্দীপা বোস।

পুরো উদ্যোগ-এ আমাদের চিফ কো-অর্ডিনেটর জয়দেব মন্ডল যথেষ্ট গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেন। উনি না থাকলে এই অনুষ্ঠানটি করা যেতনা।

আমার পাড়া সেরার সেরা বিজয়ীদের নাম আগেও আমাদের সাইটে দেওয়া হয়েছিল, এবং খবরের কাগজেও বেরিয়েছিল। আরও একবার প্রকাশ করা হচ্ছে-

 

খাস খবর আয়োজিত শারদ সম্মান-২০১৫
খাস খবর আয়োজিত শারদ সম্মান-২০১৫

 

  • সেরা মন্ডপ:     নাকতলা উদয়ন সঙ্ঘ (প্রথম)   কসবা শক্তি সঙ্ঘ (দ্বিতীয়)     হালসিবাগান সাহিত্য পরিষদ( তৃতীয়),
  • সেরা ভাবনাঃ     কসবা প্রান্তিক পল্লি (প্রথম), দর্জিপাড়া সার্বজনীন (দ্বিতীয়), প্রফুল্লকানন (তৃতীয়)
  • সেরা প্রতিমাঃ   বনহুগলী লেক ভিউ ক্লাব(প্রথম), অশ্বিনিনগর পল্লিবাসী(দ্বিতীয়), ভবানীপুর স্বাধীন সঙ্ঘ (তৃতীয়)
  • সেরা আলোকসজ্জাঃ  নেতাজী কলোনী লো ল্যান্ড (প্রথম), বি.কে পাল সন্ধানী (দ্বিতীয়), সিঁথি অগ্রগামী (তৃতীয়)

এছাড়াও কবি স্বাতী পালিত স্মৃতি পুরস্কার পাচ্ছেন যেসব পুজো কমিটি সেগুলি হল-

  • বেলেঘাটা ৩৩ পল্লি
  • ২) পাইকপাড়া ১৫ পল্লি
  • ৩) ইটালগাছা ফ্রেন্ডস অ্যাসোসিয়েসন
  • ৪) মুড়াগাছা রেনবো ক্লাব
  • ৫)বসাক বাগান
  • ৬) হরিদেবপুর নবিনসাথী
  • ৭) ২ নং মতিলাল কলোনী

 

 

 

আমাদের অঙ্গিকার ছিল, একটি স্বচ্ছ শারদ সম্মান উপস্থাপন করা।, আমরা করেছি। অর্থের প্রলভোনও এসেছিল, রাজনৈতিক অনুরোধও এসেছিল। আমরা হাসি মুখে বলেছি “পারবনা”। এবং তাই পেরেছি স্বচ্ছতা বজায় রাকতে। এত বড় একটা প্রোগ্রাম মাত্র একমাসে করতে পারা যায়, পশ্চিম বঙ্গের কোনো কো-অর্ডিনেটরও ভাবতে পারেনা। যেখানে কোনো বিজ্ঞাপনী প্রচারও ছিলনা। আমরা পেরেছি। পথ দেখিয়েছি অন্যদের। ভবিষ্যতেও পারব।

খাস খবর বাঙ্গালীর কাছে যে দূর্বল ভালবাসা, যে অভিজ্ঞতার মান বরাবর রেখে এসেছে সেই ধারাকেই আমরা এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছি। আমাদের না পড়লে পিছিয়ে পড়তে হয়না, কারণ আমরা শুধু পাঠক না সমগ্র জাতিকে নিয়ে এগিয়ে চলি। আমরা সত্যের পক্ষে……………………।।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *