স্ত্রী শিক্ষার তাগিদে একধাপ এগিয়ে এল ‘ইজি নোটস স্টেশনারী’

SHARES
Share on FacebookShareTweet on TwitterTweet

তরুনা মণ্ডল

শিক্ষা মানুষের জীবনের একটা ভীষণ গুরুত্বপূর্ণ বিষয়, তা সে ছেলেই হোক অথবা মেয়ে। শিক্ষা যেকোন মানুষকে জীবনে বেঁচে থাকার রাস্তা দেখায়, জীবনের কাছে নিজেকে বড় করে তোলার একটা তাগিদ এই শিক্ষাই মানুষকে দিয়ে থাকে। মানুষের জীবনে সবরকম শিক্ষার প্রয়োজন হলেও পুঁথিগত শিক্ষা কিন্তু সেখানে একটা আলাদাই ভূমিকা পালন করে।

বৈঠকের চিত্র
বৈঠকের চিত্র

শিক্ষার একটা আলাদা দিক বলতে গেলে চলে আসে নারীশিক্ষার কথা। আমাদের পশ্চিমবঙ্গে এই নারীশিক্ষাকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার জন্য সরকারের অভূতপূর্ব এক প্রকল্পের কথাও আমরা সকলেই জানি, যার নাম ‘কন্যাশ্রী’। অনেকেই বলে থাকেন, দেশের প্রতিটি নারী শিক্ষিত হলেই সেই দেশ শিক্ষিত হবে। তাই এই ধরনের বক্তব্য গুলিকেই মাথায় রেখে শনিবার ‘ইজি নোটস প্রাইভেট লিমিটেড’-এর পক্ষ থেকে একটি সাংবাদিক বৈঠকে ২০ জন ‘আন্ডারপ্রিভিলেজড’ অর্থাৎ অবহেলিত তথা অন্যদের তুলনায় কম সুবিধা পেয়ে থাকে এরকম কিছু মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক পাস আউট ছাত্রীদের স্কলারশিপ দেওয়ার কথা ঘোষণা করা হল।

এদিনের এই অনুষ্ঠানে মুখ্য বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ‘ইজি নোটস স্টেশনারী প্রাইভেট লিমিটেডে’র ম্যানেজিং ডিরেক্টর শালিনী বিশ্বাস, যিনি নিজে একাধারে একজন কন্যা, একজন মা, তথা একজন নারী। তাই তিনি এদিনের অনুষ্ঠানে জানিয়েছেন, ঠিক এই কারনেই হয়তো তিনি মেয়েদের নিয়ে আরো বিশেষ করে ভাবেন। এমনকি তার অফিসেও তিনি বেশিরভাগটাই মহিলাদের সান্নিধ্যেই কার্য সম্পন্ন করেন। কারণ তিনি চান মহিলারা আর্থিক ভাবে সমর্থ্য হোক, ও আরো পাঁচটা মহিলাকে শিক্ষার আলো দেখাতে ও নিজের পায়ে দাঁড়াতে উদ্যোগী করুক।

এছাড়াও এই পুণ্য অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে এদিন উপস্থিত ছিলেন, বিদ্যুৎ মন্ত্রী মাননীয় শোভনদেব চট্টোপাধ্যায় এবং বালি’র মাননীয়া বিধায়ক বৈশালী ডালমিয়া। এছাড়াও ছিলেন, রিচা শর্মা, অলকানন্দা রায়,সাবিত্রী দত্ত,সুদেষ্ণা রায়,অগ্নিমিত্রা পাল,জয়া শীল,উশসী সেনগুপ্ত, শ্রদ্ধা আগরওয়াল,রীতা বিমানি,ময়না ভগত, অনজুম কাটিয়াল ও জনাথন ওয়ার্ড প্রভূত বিশিষ্ট ব্যক্তিত্বগণ। এদিন অনুষ্ঠান শেষে উপস্থিত এই সকল ব্যক্তিত্বদের হাত দিয়েই উপস্থিত ২০ জন ‘আন্ডারপ্রিভিলেজড’ শিশুকন্যাকে ‘ইজি নোটস স্টেশনারিজ’-এর তরফ থেকে অভিনন্দনস্বরূপ প্রত্যেককে একটি করে শংসাপত্রও দিয়ে নারীশিক্ষাকে উন্নীত করার লক্ষ্যের দিকে আরো একধাপ এগোনোর চেষ্টা করেন তারা।

ADVERTISEMENT
ADVERTISEMENT
ADVERTISEMENT
ADVERTISEMENT

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *