ভিন্নধর্মী বিবাহ, জ্যান্ত পোড়ানো হল যুবককে

SHARES
Share on FacebookShareTweet on TwitterTweet

ওয়েব ডেস্ক: হিন্দু মেয়েকে বিবাহের অপরাধে পশ্চিমবঙ্গের মালদহের এক বাঙ্গালী মুসলিম যুবককে নৃশংসভাবে খুন হতে হল। ঘটনাটি ঘটেছে বিজেপি শাসিত রাজস্থানে। ঘটনা সংক্রান্ত একটি ভিডিও এখন ভাইরাল। ঘটনাটি জানাজানি হওয়াতে নিন্দার ঝড় বইছে দেশজুড়ে।

ভিন্নধর্মী বিবাহ, জ্যান্ত পোড়ানো হল যুবককে
ছবি প্রতীকী

প্রথমে লাঠি দিয়ে বেধড়ক মার তারপরে ধারালো অস্ত্র দিয়ে এলোপাথাড়ি কোপ। বেধড়ক মার খেয়ে তখন বাঁচার আর্জি জানানোর ক্ষমতাটুকুও অবশিষ্ট ছিল না মালদহ বাসিন্দা বছর ২৪শের যুবক মহম্মদ আফরাজুলের।সেটুকু ও কেড়ে নিতে কেরোসিন ঢেলে দেশলাই জ্বালিয়ে জ্যান্ত পুড়িয়ে দেওয়া হল তাকে! তবুও মৃতপ্রায় যুবককে বাঁচাতে এলেন না কেউ, বরং লেন্সবন্দি হল গোটা ঘটনা।

বিজেপি শাসিত রাজস্থানে লাভ জিহাদ দমনের নামে কট্টর হিন্দুত্ববাদীদের নারকীয়/ বিভৎস/ অমানবিক -যেকোন বিশেষণই নেহাত তুচ্ছ বলে মনে হয় তথাকথিত এই লাভ জিহাদের ঘটনার শাস্তি প্রক্রিয়া বর্ণনা করার ক্ষেত্রে। সভ্যতার উপর থেকে মনুষত্ব্যর প্রলেপ টুকুও উঠে গেলে প্রগৈতিহাসিক যুগের গভীর অন্ধকার বেরিয়ে আসে,তাঁরই সাক্ষী থাকলো মালদহ ও রাজস্থানের মানুষ।

নেপথ্যের কাহিনী বলতে গেলে পিছিয়ে যেতে হবে কয়েকটা বছর। কাজের সূত্রে রাজস্থানে গিয়েছিলেন মালদার যুবক মহম্মদ আফরাজুল। সেখানেই কাজ জুটিয়ে চলছিল দিন গুজরান। কিন্তু রাজস্থানের মেয়ে রুমারানীর প্রেমে পড়ে যান তিনি। সেখান থেকে শুরু হয় সমস্যার সূত্রপাত। তবুও বিয়ে করেন দুজন। কিন্তু শেষমেষ ভালোবাসার অপরাধে তার প্রাণ গেল আফরাজুলের।

এক ব্যক্তির মুখে শোনা যায়, ‘এই কাজের জন্য উচিত শিক্ষা দেওয়া হয়েছে তাকে।’ এই যুগে ও একজন ‘মানুষ’ কতটা পাশবিক হতে পারে, তারই যেন প্রমাণ মিলেছে এই ঘটনায়।

এবিষয়ে রাজস্থানের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী গোপাল চাঁদ কাটারিয়া জানিয়েছেন দোষী শম্ভুলাল রেজারকে গ্রেফতার করা হয়েছে। গুজরাট বিধানসভা নিবার্চনের অাগে রাজ্য প্রচারে বিজেপি বিরোধীরা ব্যাপক হারে এই ঘটনার প্রচার শুরু করে দিয়েছেন। দেশের রাজনৈতিক মহলের ও প্রবল নিন্দার ঝড় চললেও কেন্দ্রর মোদী সরকার এ ব্যপারে নীরব থাকাই শ্রেয় বলে মনে করছেন।

ADVERTISEMENT
ADVERTISEMENT

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *